২০২১ সালের এসএসসি/দাখিল (ভোকেশনাল) জেনারেল মেকানিক্স-১ (২য় পত্র) এসাইনমেন্ট সমাধান/উত্তর (১ম সপ্তাহ) | এসএসসি/দাখিল (ভোকেশনাল) ১ম সপ্তাহের এসাইনমেন্ট সমাধান ২০২১ উত্তর জেনারেল মেকানিক্স-১ (২য় পত্র)


    ২০২১ সালের এসএসসি/দাখিল (ভোকেশনাল) জেনারেল মেকানিক্স-১ (২য় পত্র) এসাইনমেন্ট সমাধান/উত্তর (১ম সপ্তাহ)


    শিরোনামঃ ওয়ার্কশপের সতর্কতামূলক পরিবেশ 


    সমাধানঃ

    বিপজ্জনক অবস্থাসমূহঃ 

    ওয়ার্কশপে বা কারখানায় কার্য সম্পাদন করার সময় বিভিন্ন প্রকার মেশিন ও যন্ত্রপাতি নিয়ে কাজ করতে হয় । এসব মেশিন ও যন্ত্রপাতি নিয়ে কাজ করার সময় ক্ষয়ক্ষতি এবং আরাে নানা কারণে বিভিন্ন প্রকার দুর্ঘটনা ঘটায় বা ক্ষতির আশঙ্কা থাকে । এ দুর্ঘটনা বা ক্ষতির আশঙ্কামুক্ত অবস্থাকে বিপজ্জনক অবস্থা বলা হয় ।

    বিপজ্জনক অবস্থাসমূহের তালিকা করে নিম্নে উপস্থাপন করা হলোঃ

    ১। অপর্যাপ্ত স্তান - মানুষ , জিনিসপত্র , যন্ত্রপাতি ও মেশিন ইত্যাদির জন্য বিধিসম্মত জায়গার অভাব দুর্ঘটনা ঘটার অন্যতম কারণ । 
    ২। অপর্যাপ্ত আলাে , কম আলাে এবং বেশি বা ঝলকানাে আলাে দুটিই কাজের জন্য ক্ষতিকর এবং দুর্ঘটনার কারণ হতে পারে । 
    ৩। অপর্যাপ্ত বিশুদ্ধ বায়ু চলাচলের পথ । 
    ৪। বৈদ্যুতিক ত্রুটি ।
    ৫। সেফটি গার্ডবিহীন মেশিনপ্রত এবং কর্মস্থল । 
    ৬। যন্ত্রাদির ঢিলে বা ভাঙা অংশ । 
    ৭। যন্ত্রাদির ধারালাে কাটিং এজ । 
    ৮। যন্ত্রাদির ধারালাে চোখপ্রাপ্ত । 
    ৯। ওয়ার্কশপের মেঝেতে পড়ে থাকা তেল , গ্রীজ বা অন্যান্য তরল পদার্থ । 
    ১০। স্ক্র্যাপ মেটাল ।
    ১১। ধাতব চিপস । 
    ১২। ত্রুটিপূর্ণ যন্ত্রপাতি এব মেশিনপত্র ।




    নিচে দুর্ঘটনার কারণ উল্লেখ করা হলাে :

     ১।অপর্যাপ্ত আলাে - কম বা বেশি আলাে দুটোই কাজের জন্য ক্ষতিকর এবং দুর্ঘটনার কারণ হতে পারে । 
    ২। অপর্যাপ্ত স্থান - মানুষ , পণ্য ও টুলসের জন্য প্রয়ােজনীয় স্থানের অভাব দুর্ঘটনা ঘটিয়ে থাকে । 
    ৩। অপর্যাপ্ত বিশুদ্ধ বায়ু চলাচল । 
    ৪। বৈদ্যুতিক ব্যবস্থার ত্রুটি । 
    ৫। সেফটি গার্ডবিহীন মেশিনপত্র এবং কর্মস্থল । 
    ৬। যন্ত্রাদির চোখা ধারালাে কাটিং এজ - এর অসাবধান ব্যবহার 
    ৭। যন্ত্রাদির চোখা ( Pointed ) প্রান্তের অসাবধান ব্যবহার । 
    ৮। যন্ত্রপাতির ঢিলা বা ভাঙ্গা অংশ থাকা । 
    ৯। মেঝেতে পড়ে থাকা , গ্রীজ , তরল ও অন্যান্য পিচ্ছিল পদার্থ । 
    ১০। ধাতব চিপস ঠিকমতাে অপসারণ না করা । ১২। নিরাপদ কার্যাভ্যাস না থাকা । 
    ১৩। ত্রুটিপূর্ণ যন্ত্রপাতি হ্যান্ড টুলস এবং মেশিনপত্র প্রভৃতি ব্যবহার করা । 
    ১৪। সঠিক কুলেন্ট ও লুব্রিক্যান্ট ব্যবহার না করা । 
    ১৫। ফ্লোর ভাঙ্গা বা উঁচু নিচু থাকা । 
    ১৬। গগলস না পড়ে ওয়েন্ডিং বা গ্রাইন্ডিং করা ।

    নিরাপত্তামূলক পোশাক ও সরঞ্জামাদি নির্বাচন ঃ

    *যে কোনাে মেশিনটুলে কাজ করার সময় সেফটি গগলস্ পরিধান করা উচিত । কারণ এটা ছিটকে আসা চিপস / কণা থেকে চোখকে রক্ষা করে । 

    • ওয়ার্কশপে সর্বদা শক্ত ও অপিচ্ছিল তলযুক্ত জুতা পরিধান করা উচিত । কারণ চিপ জুতার তল কেটে পায়ের নিচে আঘাত করতে পারে । তা ছাড়া পড়ন্ত বস্তুর হাত থেকে পা - কে রক্ষা করে । 

    • স্যান্ডেল পরিধান করে ওয়ার্কশপে কাজ করা উচিত নয় । কারণ যেকোনাে সময় ভারী জিনিস পায়ের উপর পড়তে পারে , যা মারাত্মক আঘাতের কারণ হয় । 

    • মেশিনে কাজ করার সময় সর্বদা আঁটসাঁট পােশাক পরিধান করা উচিত । কারণ ঢিলা এবং ছেড়া পােশক চলমান যন্ত্রাংশে আটকে যেতে পারে। 
    • মেশিনে কাজ করার সময় হাতাকাটা বা কনুইয়ের উপর পর্যন্ত ভাজ করা জামা ব্যবহার করা উচিত । কারণ লম্বা হাতে চলমান যন্ত্রাংশে আটকে যেতে পারে ।

    *ওয়ার্কশপে কাজ করার সময় আংটি , হাতঘড়ি এবং কজির অলঙ্কার পরিধান করা উচিত নয় । কারণ এগুলাে আঘাতের কারণ হতে পারে । 

    • মেশিনে কাজ করার সময় নেক টাই , মাফলার এবং চাদর পরিধান করা উচিত নয় । কারণ এগুলাে চলমান যন্ত্রাংশে জড়িয়ে যেতে পারে এবং মারাত্মক দুর্ঘটনার কারণ হতে পারে 

    *লম্বা চুল অবশ্যই বেঁধে রাখতে হবে । কারণ লম্বা চুল চলমান যন্ত্রাংশে জড়িয়ে যেতে পারে এবং মারাত্মক দুর্ঘটনার কারণ হতে পারে । 

    • মেশিনে কাজ করার সময় দস্তানা ব্যবহার করা উচিত নয় । কারণ এটা আঘাতের কারণ হতে পারে ।

    *কাঁচামাল , স্ক্র্যাপ ও চিপে হাত লাগাতে চামড়ার তৈরি দস্তানা পরিধান করা উচিত । 

    *বৈদ্যুতিক কাজ করার সময় রাবারের দস্তানা ব্যবহার করা উচিত ।

    • অ্যাপ্রােন পরিধান করা ছাড়া কাজ শুরু করা উচিত নয় ।


    দুর্ঘটনার ক্ষতির বিবরণাদিঃ 

    কোনাে স্থানে দুর্ঘটনা ঘটলে সঙ্গে সঙ্গে উক্তস্থলে গিয়ে দুর্ঘটনাকবলিত জানমাল উদ্ধারের প্রচেষ্টা চালাতে হবে । তাছাড়া ফায়ার সার্ভিস , উপযুক্ত কর্তৃপক্ষ এবং সংশ্লিষ্ট সকলকে এ সম্পর্কে অবহিত করতে হবে । এছাড়া নিম্নলিখিত বিষয়াদি সংবলিত দুর্ঘটনা সম্পর্কে একটি প্রতিবেদন প্রস্তুত করতে হবে। 

    *দুর্ঘটনার স্থান , সময় ও সম্ভাব্য কারণ 
    * দুর্ঘটনার জন্য কে দায়ী
    *জানমালসহ ক্ষয়ক্ষতির আনুমানিক পরিমাণ 
    *দুর্ঘটনার কারণে পরিপার্শ্বিক প্রতিক্রিয়া ইত্যাদি 
    *দুর্ঘটনা যাতে ভবিষ্যতে না ঘটে তজ্জন্য প্রতিরােধ ব্যবস্থা গ্রহণের সুপারিশ ইত্যাদি । 

    ওয়ার্কশপে দুর্ঘটনা ঘটলে তিন ধরনের ক্ষতির আশঙ্কা থাকে । যথা : 

    ১। বাক্তিগত ক্ষতি - কর্মী
    ২। মেশিন , যন্ত্রপাতির বা মালামালের ক্ষতি 
    ৩। ওয়ার্কশপের ক্ষতি 
    সর্বোপরি প্রতিষ্ঠানের ক্ষতি , দেশের ক্ষতি । 

    নিম্নে দুর্ঘটনাজনিত উপরােক্ত ক্ষতির বিবরণাদি উল্লেখ করা হলােঃ 

    ব্যক্তিগত ক্ষতি : 
    ১। অ্যাপ্রােণ ব্যবহার না করে কাজ করার ফলে শার্ট তথা শরীরের ক্ষতি । 
    ২। গগলস ব্যবহার না করার ফলে চিপস / ওয়েন্ডের বা গ্রাইভারের ফুলকিজনিত চোখের ক্ষতি । 
    ৩। চামড়ার জুতা ব্যবহার না করার ফলে পায়ের ক্ষতি । 
    ৪। গরম ওয়ার্কপিচ ধরার ক্ষেত্রে হ্যান্ড গ্লোভস ব্যবহার না করার জন্য হাতের ক্ষতি । 
    ৫। ধারালাে যন্ত্রপাতি , কর্তিত ধাতুখও , তেল জাতীয় পদার্থ মেঝের উপর ফেলে রাখলে এতে পা পিছলে দুর্ঘটনা ঘটাজনিত অঙ্গপ্রত্যঙ্গের ক্ষতি । 

    মেশিন বা যন্ত্রপাতির ক্ষতিঃ 

    ওয়ার্কশপে বিভিন্ন মেশিন ও যন্ত্রপাতি দিয়ে কাজ করতে হয় । এ সমস্ত মেশিন বা যন্ত্রপাতি দিয়ে কাজ করার সময় কারিগরের অন্যমনস্কতা ও নিরাপত্তাজনিত কারণগুলাে সঠিকভাবে পালন না করার কারণে বিভিন্ন ভাবে মেশিন বা যন্ত্রপাতির ক্ষতি হয়ে থাকে । যেমনঃ 

    ১। বৈদ্যুতিক সার্কিটের গােলযােগের কারণে মােটর ও ইলেট্রিক্যাল এক্সেসরিজ পুড়ে যেতে পারে । 
    ২। অনিয়মমাফিক যেমন কাটিং টুল ঠিকমতাে ব্যবহার না করার ফলে মেশিনের কাটিং টুল ও জবের ক্ষতি । 
    ৩। মেজারিং ইনমেন্টস বা টুলস সঠিক পদ্ধতিতে ব্যবহার না করা জনিত ক্ষতি ।
     ৪ র্মনােযােগী , অসাবধানতাবত যন্ত্রপাতি ব্যবহার করার ফলে ভেঙ্গে যাওয়া যন্ত্রপাতির ক্ষতি । 

    ওয়ার্কশপের ক্ষতিঃ 

    সাবধানতার সাথে কাজ না করার ফলে ওয়ার্কশপের বিভিন্ন প্রকার ক্ষতির আশঙ্কা থাকে । যেমন : 

    ১। দাহ্য পদার্থসমূহ উপযুক্ত স্থানে সংরক্ষণের ত্রুটিজনিত ক্ষতি । 
    ২। অনাবৃত বা খােলা আগুন দাহ্য পদার্থের সংস্পর্শে আসার ফলে ক্ষতি । 
    ৩। বৈদ্যুতিক শর্টসার্কিটজনিত আগুন লাগলে ফিটিংস পুড়ে গিয়ে ক্ষতি । 
    ৪। দরজা - জানালাসহ মালামালের ক্ষতি ।


    এসএসসি/দাখিল (ভোকেশনাল) ১ম সপ্তাহের এসাইনমেন্ট সমাধান ২০২১ উত্তর জেনারেল মেকানিক্স-১ (২য় পত্র) 



    Tag: ২০২১ সালের এসএসসি/দাখিল (ভোকেশনাল) জেনারেল মেকানিক্স-১ (২য় পত্র) এসাইনমেন্ট সমাধান/উত্তর (১ম সপ্তাহ),  এসএসসি/দাখিল (ভোকেশনাল) ১ম সপ্তাহের এসাইনমেন্ট সমাধান ২০২১ উত্তর জেনারেল মেকানিক্স-১ (২য় পত্র) 
    Previous Post Next Post

    👇 সকল ক্লাসের এসাইনমেন্ট নোটিফিকেশন আকারে সহজে পেতে ডাউনলোড করুন আমাদের এপ্লিকেশন 

    আমাদের ফেসবুক পেইজে যুক্ত হতে ক্লিক করুন