বিজয় দিবসের সংক্ষিপ্ত বক্তৃতা | বিজয় দিবসের বক্তব্য pdf | ১৬ ডিসেম্বর বিজয় দিবসের ভাষণ - বিজয় দিবসের ভাষণ


    ১৬ ডিসেম্বর বিজয় দিবসের ভাষণ

    আসসালামুআলাইকুম সবাইকে Educationblog.Com এ স্বাগতম। 

    আশা করি আল্লাহুর অশেষ রহমতে আপনারা সবাই ভালো আছেন। আলহামদুলিল্লাহ আমরাও আল্লাহর অশেষ রহমতে ভালো আছি। 

    বন্ধুরা আপনারা যারা এই মহান বিজয় দিবস উপলক্ষে বিভিন্ন অনুষ্ঠানে বিজয় দিবস সম্পর্কে বৃক্ততা দিতে চান। তারা আমাদের পোস্টে দেওয়া বিজয় দিবস সম্পর্কে বক্তব্য নিয়ে দিতে পারেন। 

    আমরা আপনাদের সুবিধার জন্য আপনাদের মাঝে শেয়ার করবো বিজয় দিবস উপলক্ষে সংক্ষিপ্ত কিছু বক্তব্য ও বিজয় দিবসের ব্যক্তবের Pdf এবং ১৬ ডিসেম্বর মহান বিজয় দিবসের ভাষণ। আশা করি আমাদের দেওয়া তথ্যগুলো পেয়ে আপনাদের অনেক সুবিধা হবে।


    বিজয় দিবস উপলক্ষে বক্তৃতা 


    অতঃপর মা আমি ফিরে এলাম তোমার বুকে কিংবা এ মাটির বুকে,

    বুঝে নাও রক্তের দামে কেনা তোমার এর রক্তাক্ত বিজয়!"!

    অদ্যকার বিজয় দিবস উপলক্ষ্যে  আয়োজিত অনুষ্ঠানে উপস্থিত সভার মধ্যমণি সম্মানিত  সভাপতি সাহেব, বিশিষ্ট শিক্ষক পর্ষদ,আরও উপস্থিত শ্রদ্ধেয় অতিথিবৃন্দ এবং আমার প্রাণাধিক প্রিয় সহপাঠীবৃন্দ সকলকে আমার পক্ষ থেকে  বিজয়ের শুভেচ্ছা ও সালাম জানাচ্ছি।।

    ১৯৭১ সাল ডিসেম্বর মাস ১৬ তারিখ!

    আমাদের বিজয় এই স্বাধীনতার বিজয়, যা বাঙালির ইতিহাস সর্বোপরি বিশ্ব ইতিহাসে নজিরবিহীন।

    ৩০ লক্ষাধিক মানুষের প্রাণের বিনিময়ে অর্জিত এ বিজয়। মা বোনের সংরক্ষিত সম্ভ্রমের লুটপাটে  এ বিজয়।আমরা সেই সব আলোকিত মানুষকে স্মরন করছি যাদের আলোর পরশে এসেছে মুক্তমনে বাঁচার অধিকার । এরা সূর্য সন্তান এ বাংলার।

    প্রাণের মায়া ত্যাগে যারা দিলো এ বিজয় তাদের হাজারো সালাম। কত অন্তরায় কত বাধা পেরিয়ে এ বিজয় অর্জন।হাজারও দেশদ্রোহী জঞ্জালে উত্তপ্ত ছিলো এ মাটি । দেশদ্রোহী সন্তানেরা আজ নিশ্চিহ্ন।

    যারা প্রাণ দিলো তারাই ছিলো জয়ের সারথী।

    মা মাটি চায়, চায় ওরা মায়ের স্বাধীনতা যেখানে থাকবেনা চলার পথে কোন অবৈধ নিয়ন্ত্রণ। 


    তাই কবি বলেছেন এভাবেই,


    এ আমার মায়ের মাটি আমার ভাইয়ের রক্তের

    প্রতিদানে ভাষার দেশ।

    আমাকে নিষেধ করো না মা!

    তোমার অস্তিত্ব তো আমাকেই রক্ষা করতে

    হবে!

    ভেবে না মা আমি ফিরবো বিজয় নিয়ে রক্তের

    দামে।।


    বিজয়ের সুখ পেলো বাঙালি। উজ্জিবিত বাঙলার আকাশ বাতাশ

    বিজয়ের সুখ মিললো সর্বজনে।

    বিজয়ের চার দশক পরে এ বাংলার মাটিতে বিজয়ের সেই সুখটা হারাতে বসেছে।বাঙালি আজ বিভক্ত স্বার্থের মায়াজালে। নিজের সুখকে আকড়ে ধরে বাঁচার চেষ্টা প্রাণপনে। অদূর ভবিষ্যতে এ চিত্র বিরাজ করলে বাঙালি সামান্য আঘাতে অস্তিত্ব হারাবে তা বলাই বাহুল্য। তাই সকল বাংলার মানুষের প্রতি আমার করোজোড়ে নিবেদন এই দেশটাকে ভালোবেসে মা মাটির অস্তিত্ব রক্ষার্থে এ  বিজয় দিবসের মহত্ত্ব নিয়ে আমরা আবার সেই বাঙালি হই যেখানে অজ্ঞ বিজ্ঞ উঁচু নিচুর দৌরাত্ম্য নেই। তবেই পাবো আমরা সত্যিকারের বিজয় নতুবা এ বিজয় শুধু নামমাত্র।


    সকলকে আবারও বিজয়ের শুভেচ্ছা বিদায় নিচ্ছি।


    নিচের এটা ও দেখতে পারেন


    বিজয় দিবসের সংক্ষিপ্ত বক্তৃতা  

    বিসমিল্লাহির রাহমানির রাহীম,,, 

    আজকের এই মহান বিজয় দিবস উপলক্ষে অনুষ্ঠানে উপস্থিত সম্মানীয় ব্যক্তিবর্গ, উপস্থিত আমার সমবয়সী রাজনৈতিক কর্মীরা/সহপাঠীরা এবং আমার শিক্ষাগুরুরা সবাইকে জানাই আমার পক্ষ থেকে সালাম ও মহান বিজয় দিবসের প্রাণঢালা শুভেচ্ছা/অভিনন্দন। 

    আজকের এই ১৬ ডিসেম্বর দিনটি আমাদের কাছে বাঙালি জাতির কাছে অবিস্মরণীয় এক ইতিহাস। 

    ৯ মাস রক্তক্ষয়ী যুদ্ধের পর ৩০ লক্ষাধিক মানুষের প্রাণের বিনিময়ে অর্জিত হয়েছে আজকের এই ইতিহাস যা মহান বিজয় দিবস নামের পরিচিত। আজকের এই আমাদের মা বোনের সংরক্ষিত সম্ভ্রমের লুটপাটে  এ বিজয়।আমরা সেই সব আলোকিত মানুষকে স্মরন করছি যাদের আলোর পরশে এসেছে মুক্তমনে বাঁচার অধিকার ।

    প্রাণের মায়া ত্যাগে যারা দিলো এ বিজয় তাদের হাজারো সালাম। কত অন্তরায় কত বাধা পেরিয়ে এ বিজয় অর্জন। হাজারও দেশদ্রোহী জঞ্জালে উত্তপ্ত ছিলো এ মাটি । দেশের স্বার্থে যারা প্রাণ দিলো তারাই ছিলো জয়ের সারথী।

    মা মাটি চায়, চায় ওরা মায়ের স্বাধীনতা যেখানে থাকবেনা চলার পথে কোন অবৈধ নিয়ন্ত্রণ। কত যে নির্যাতন সইতে হয়েছে এই বিজয় নিশ্চিতের জন্য সেটা বলার ভাষা আমার নেই। 

    এতো নিযার্তন এতো মর্মান্তিক ঘটনা ছিলো কিসের জন্য, আমরা বাঙালি চেয়েছিলাম শুধু নিজের মাতৃভাষা টাকে ধরে রাখতে, আমরা বাঙালি আমরা চেয়েছিলাম নিজের মাতৃভূমিকে ধরে রাখতে, বাঙালি জাতি আমরা শুধু চেয়েছিলাম স্বাধীনভাবে বাঁচতে।এটা তো বড় চাওয়া ছিলো না। 

    অবশেষ কি অনেক সম্মাণীয় ব্যক্তিবর্গ ত্যাগে এবং বাঙালি জাতির মৃত্যুর, আমার মা-বোনেদের লজ্জা হারানোর বিনিময়ে আমরা আজকের এই বিজয় পেতে সফল হয়েছি। 

    তাই আমি লাখো-কোটি সালাম জানাই সেই সব শহীদদের যাদের বিনিময়ে আমরা বাঙালি জাতি এখন স্বাধীন দেশে স্বাধীনভাবে বসবাস করতে পারছি। 

    আমি আর আমার কথা দীর্ঘায়ীত করবো না। শুধু একটা কথাই বলবো যে আমরা যেন মা মাটির জন্য দেশের জন্য নিঃস্বার্থ ভাবে সব সময় কাজ করে যেতে পারি এবং লক্ষ লক্ষ শহীদদের মর্যাদা বজায় রাখতে পারি। 

    এই বলে আমি আমার ব্যক্তব্য শেষ করছি। 

    সবাই ভালো থাকবেন, সুস্থ থাকবেন। 

    আল্লাহ হাফেজ,,!!


    বিজয় দিবসের বক্তব্য pdf  


      Click Here To Download 



    Tag: বিজয় দিবসের সংক্ষিপ্ত বক্তৃতা,  বিজয় দিবসের বক্তব্য pdf,  ১৬ ডিসেম্বর বিজয় দিবসের ভাষণ

                                   

    0/Post a Comment/Comments

    Previous Post Next Post

      আপনার নামের অর্থ জানতে ক্লিক করুন


    আমাদের ফেসবুক পেইজে যুক্ত হতে ক্লিক করুন