মনের নিয়ন্ত্রণ যোগ মেডিটেশন pdf | মনের নিয়ন্ত্রণ প্রবীর ঘোষ pdf Download

মনের নিয়ন্ত্রণ যোগ-মেডিটেশন by প্রবীর ঘোষ Pdf Download | মনের নিয়ন্ত্রণ যোগ-মেডিটেশন PDF

মনের নিয়ন্ত্রণ যোগ-মেডিটেশন by প্রবীর ঘোষ Pdf Download | মনের নিয়ন্ত্রণ যোগ-মেডিটেশন PDF

প্রিয় পাঠক মনের নিয়ন্ত্রণ যোগ মেডিটেশন বইটির পিডিএফ কপি নিচে দেওয়া হলো। এর আগে মনের নিয়ন্ত্রণ যোগ মেডিটেশন বই থেকে সামান্য তুলে ধরা হলো এই গুলো পড়ে ভালো লাগলে বইটি ডাউনলোড করে পড়ে নিবেন। 

বুদ্ধি - মেধা বাড়াবার উপায় মেধা 

বুদ্ধি বাড়াবার প্রধান উপায় হল — মস্তিষ্ককোষগুলােকে প্রচুর পরিমাণে কাজে লাগানাে । মস্তিষ্ককোষকে কে কতটা কাজে লাগাচ্ছে , তার উপর নির্ভর করছে বুদ্ধি - মেধার উন্নতি । মগজকে যত বেশি কাজে লাগাবেন , খেলাবেন তত বেশি মেধা বুদ্ধির বিকাশ ঘটবে । স্নায়ুকোষের শেখার ক্ষমতা এতই বেশি যে , আন্তরিকতার সঙ্গে , ভালােবেসে যা শিখতে চাইবেন , তাই শিখে নেবে স্নায়ুকোষ । ভালাে - খারাপ , অপরাধ - বিজ্ঞান থেকে চিকিৎসা বিজ্ঞান , সাহিত্য থেকে সমাজনীতি যা - ই পড়বেন , দেখবেন , জানবেন , তা - ই জমা হবে স্নায়ুকোযে । লিওনার্দো দা ভিঞ্চি থেকে রবীন্দ্রনাথ - সত্যজিৎ পর্যন্ত পৃথিবীর বহু প্রতিভাই বিভিন্ন বিষয়ে পর্যাপ্ত পরিমাণে তাদের মস্তিষ্ককোষকে কাজে লাগাতেন । এতে তারা সবচেয়ে বেশি করে মস্তিষ্ককোষগুলােকে কর্মক্ষম রাখতে সক্ষম হয়েছিলেন ।

মস্তিষ্ক হল — কাজ করলে কাজী , অলস হলেই পাজী । চিত্রা বসু ফিজিক্সে ফাস্ট ক্লাশ পেয়ে এম . এস . সি । বিয়ে হল কলকাতার ধনী বনেদী বাড়িতে । বছর দশেক পরে বইমেলায় ওকে দেখলাম । সপ্রতিভ , জিজ্ঞাসু , ঝকঝকে , কথার সেই মানুষটাকে খুঁজেই পেলাম না । জানাল ওর রােজনামচা । মেয়েকে তৈরি করে দিয়ে সকালে স্কুলে পৌছে দেওয়া । স্কুল থেকে আনা । দুপুরে কিছুটা ঘুম । সন্ধ্যায় মেয়েকে পড়ানাে । গাড়ি আছে । স্কুলে যাওয়া আসার কষ্ট নেই । মেয়ের বইগুলাে পড়ার বাইরে অন্য কোনও বই পড়ার তেমন সুযােগ হয় না । মেয়ের জন্য কয়েকটা কেনার মতাে বইয়ের খোঁজে মেলায় আসা , বর , মেয়ে ও তাদের পরিচর্যা ও দিবানিদ্রার মধ্যেই অভ্যস্ত হয়ে উঠেছে সে । চর্চার অভাবে চিত্রার মেধা - বুদ্ধি ভোতা হয়ে গেছে । 

আইনস্টাইন একবার রসিকতার সুরে বলেছিলেন , ' কিছু লােকের মস্তিষ্ক আছে , কিন্তু কোনও কাজেই লাগে না । ওরা যা কাজ করে তারজন্য শুধু শিরদাঁড়াই যথেষ্ট ছিল ।

আমাদের গলার ওপর একটা মাথা চাপান আছে । সেটা কি শুধুই বয়ে বেড়াবার জন্যে ? নাকি শ্যাম্পু , ময়শ্চারাইজার , সাবানের বিজ্ঞাপনে দেখাবার জন্যে ? 

আমাদের মনে রাখতেই হবে মগজকে যথেষ্ট পরিমাণে কাজে না লাগালে অলস মস্তিষ্ককোষগুলাের মৃত্যু ঘটতে থাকবে । 

শারীরিকভাবে স্থায়ী অসুস্থতা অনেক সময় একজনকে মানসিকভাবে দুর্বল করে দিতে পারে । ফলে চিন্তায় থতা আসে , পরিকল্পনা মাফিক কাজে উৎসাহ হারায় । ফলে মস্তিষ্ক স্নায়ুকোষগুলাের দ্রুত মৃত্যু ঘটতে থাকে । চিন্তা , বুদ্ধি , মেধা , বিশ্লেষণক্ষমতা লােপ পায় । কিন্তু শারীরিক অক্ষমতার পরও কেউ যদি তার মগজ নানা কাজে খেলাতে থাকেন , তবে নতুন নতুন সৃষ্টির বিস্ময়কর বিকাশ সম্ভব । স্টিফেন হকিং - এর মতাে পৃথিবী বিখ্যাত বিজ্ঞানী তার - ই এক জ্বলন্ত উদাহরণ । অচল দেহ । কিন্তু সচল মস্তিষ্ক তাকে শ্রদ্ধেয় বিজ্ঞানী করেছে । ‘

 পারকিন্স ’ রােগী , বিশিষ্ট অর্থনীতিবিদ ড . বিপ্লব দাশগুপ্ত দু'জনের সাহায্য ছাড়া হাঁটতে পারতেন না , কথা বলতেন এতই জড়িয়ে যে তার কাছের মানুষরাও কথার অর্থ বুঝতে পারতেন না । মুখ দিয়ে লালা পড়তাে । প্রবীণ মানুষটি এইসব শারীরিক প্রতিবন্ধকতা নিয়েও এখনও কম্পিউটারে বসে লিখে গেছেন অনবদ্য সব অভিজ্ঞতা , অর্থনীতি ও সমাজবিজ্ঞানের অসাধারণ বিশ্লেষণধর্মী নানা গ্রন্থ । তিনি জানতেন মস্তিষ্কচর্চাই তাকে অলজাইমার রােগের আক্রমণ থেকে বাঁচাবে । এটাও জানতেন , পারকিন্স রােগীদের অলজাইমার রােগের সম্ভাবনা অত্যন্ত বেশি । অলজাইমার রােগী , চিন্তাশক্তি , বাশক্তি হারিয়ে ফেলে । আর অলজাইমার রােগ প্রতিরােধের একমাত্র উপায় ব্যাপক মস্তিষ্কচর্চা । 

ব্যাপক মস্তিষ্কচর্চা অব্যাহত রাখতে পারলে যুক্তিবােধ নব্বইতেও অতি তীক্ষ থাকে । হাতের সামনে উদাহরণ জর্জ বারনার্ড শ ’ , নীরদ সি . চৌধুরী , খুশবন্ত সিং অন্নদাশঙ্কর রায় ।

এখানে তো সামান্য তুলে ধরা হলো বইটির পিডিএফ ফাইল ডাউনলোড করে অবশ্যই মন নিয়ন্ত্রণ যোগ-মেডিটেশন বইটি পড়তে ভূলবেন না। 

মনের নিয়ন্ত্রণ যোগ মেডিটেশন pdf | মনের নিয়ন্ত্রণ প্রবীর ঘোষ pdf | মেডিটেশন বই pdf download

Titleমনের নিয়ন্ত্রণ যোগ-মেডিটেশন
Authorপ্রবীর ঘোষ
Publisherদে’জ পাবলিশিং (ভারত)
Qualitypdf

Click Here To Download 

Tag:মনের নিয়ন্ত্রণ যোগ-মেডিটেশন by প্রবীর ঘোষ Pdf Download,মনের নিয়ন্ত্রণ যোগ-মেডিটেশন PDF,মনের নিয়ন্ত্রণ যোগ মেডিটেশন pdf, মনের নিয়ন্ত্রণ প্রবীর ঘোষ pdf, মেডিটেশন বই pdf download

0/Post a Comment/Comments

Previous Post Next Post