আর্জেন্টিনা বনাম ব্রাজিল প্রীতি ( আর্জেন্টিনা vs brazil) ম্যাচ ২০২২ বাতিল হয়ে গেলো,কি কারনে বিস্তারিত জেনে নিন

 

আর্জেন্টিনা বনাম ব্রাজিল প্রীতি ( আর্জেন্টিনা vs brazil) ম্যাচ ২০২২ বাতিল হয়ে গেলো,কি কারনে বিস্তারিত জেনে নিন

       
       

    আর্জেন্টিনা বনাম ব্রাজিল ( আর্জেন্টিনা vs brazil) ম্যাচ বাতিল হয়ে গেলো

    আসছালামু আলাইকুম প্রিয় খেলোয়াড় প্রেমি ভাই ও বোনেরা ১১ জুন ২০২২ আর্জেন্টিনা বনাম ব্রাজিলের প্রীতি ম্যাচ হবার কথা ছিলো বাংলাদেশ টাইম বিকাল ৫ টায় এই খেলাটি বাতিল করে দেওয়া হয়েছে।

    আর্জেন্টিনা বনাম ব্রাজিল ম্যাচ টি বাতিল হওয়ার প্রথম কারণ – আর্জেন্টিনা এবং ব্রাজিলের ম্যাচ টি আর্জেন্টিনার জুন মাসে তিন নম্বর ম্যাচ হতে চলেছে. যেখানে আর্জেন্টিনা বড় দুটি ম্যাচ খেলে ফেলেছে এবং আর্জেন্টিনা ও ব্রাজিলের ম্যাচ হওয়ার কথা ছিল অস্ট্রেলিয়া. আর্জেন্টিনার অনেক পেলেয়ার আপাতত অসুস্থ রয়েছে এবং তারা একটা ছুটি চায় তার কারণ অনেকটি পেলেয়ার আবার ইনজুরিতে আছে. এই কারণে আর্জেন্টিনার কোচ লিওনের স্কলোনি চাইছে না যে একটা বড় ম্যাচ তাদের সামনে চলে আসুক এই কারণে ম্যাচটি বাতিল করেছে আর্জেন্টিনা. 

    কাতার বিশ্বকাপ 2022 এর আগে ব্রাজিল এবং আর্জেন্টিনার মুখোমুখি হওয়ার সম্ভাবনা ক্ষীণ হয়ে গেছে।  আগামীকাল অস্ট্রেলিয়ায় অনুষ্ঠিতব্য ম্যাচটি পরিত্যাগ করেছে দুই দল।  আর্জেন্টিনা দল আয়োজকদের জানিয়েছিল যে মেলবোর্ন ক্রিকেট গ্রাউন্ডে অনুষ্ঠিতব্য ম্যাচটিতে পৌঁছানো যায়নি।


    ম্যাচের 60,000 টিরও বেশি টিকিট বিক্রি হওয়ার পরে প্রতিযোগিতা ছাড়ার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছিল।  ভিক্টোরিয়ার ক্রীড়ামন্ত্রী মার্টিন পাকুলা বলেছেন, যারা টিকিট কিনেছেন তাদের টাকা ফেরত দেওয়া হবে।  তিনি বলেছেন আর্জেন্টিনার প্রত্যাহারে তিনি হতাশ এবং অস্ট্রেলিয়ান ফুটবল ভক্তদের কাছে প্রত্যাহারের কারণ ব্যাখ্যা করার বাধ্যবাধকতা ছিল আর্জেন্টিনা দলের।


    ফিফা আর্জেন্টিনা এবং ব্রাজিলের মধ্যে বিশ্বকাপ বাছাইপর্ব পুনরায় শুরু করার আহ্বান জানিয়েছে, তবে কোন পক্ষই এখনও সম্মত হয়নি।  গত বছরের সেপ্টেম্বরে ব্রাজিলে অনুষ্ঠিত ম্যাচটি, আর্জেন্টিনার কিছু খেলোয়াড়ের বিরুদ্ধে কোভিড প্রোটোকল লঙ্ঘনের অভিযোগের পরে ব্রাজিলের স্বাস্থ্য মন্ত্রকের কর্মকর্তারা কিছুক্ষণ পরেই শুরু করেছিলেন।

    যদিও উভয় দলই বিশ্বকাপে খেলার যোগ্যতা অর্জন করেছে, ফিফা উভয় দেশের ফুটবল অ্যাসোসিয়েশনগুলোকে আবারো এই বাছাইপর্বে খেলার আহ্বান জানিয়েছে।  ফিফা দুই দেশকেই সেপ্টেম্বরে খেলতে বলেছে।



                                   
    Previous Post Next Post
    আমাদের ফেসবুক পেইজে যুক্ত হতে ক্লিক করুন  

     

    আপনার নামের অর্থ জানতে ক্লিক করুন