ইসলামী শরীয়তে পাত্রী দেখার নিয়ম | পাত্রী দেখার ইসলামিক নিয়ম

 

ইসলামী শরীয়তে পাত্রী দেখার নিয়ম | পাত্রী দেখার ইসলামিক নিয়ম

আসসালামু আলাইকুম  প্রিয় দ্বীনি ভাই ও বোনেরা সবাই কেমন আছেন?  আশা করি সকলেই আল্লাহর রহমতে ভালো  আছেন। সকলের সুস্থ সবল জিন্দেগী কামনা করি।বন্ধুরা আজকে তোমাদের সাথে পাত্রী দেখার ইসলামি নিয়ম শেয়ার করবো।

       
       

    ইসলামী শরীয়তে পাত্রী দেখার নিয়ম |

    বিবাহের পূর্বে পাত্রী দেখা সুন্নত।এনিয়ে ইমাম বুখারী রহঃএকটি অধ্যায় লিখেছেন,তার নাম হলোباب النظر الى المرءة قبل التزويج বিবাহ এর পূর্বে কনে দেখা।আর ইমাম তিরমিজি রহঃ তিরমিজি শরীফে একটি হাদিস উল্লেখ করেন .عن المغيرة بن شعبة انه خطب امراة،فقال النبي صلى الله عليه وسلم،انظر اليها فانه احرى ان يؤدم بينكما.অর্থ, মুগীরা ইবনে শু,বা রাঃ থেকে বর্ণিত তিনি এক মহিলাকে বিবাহের প্রস্তাব দিলেন,তখন রসুল (সঃ) তাকে বললেন, তাকে দেখে নাও কারণ এই দেখা অধিক উপযোগী যে তোমাদের উভয়ের মধ্যে মহব্বত লম্বা সময় হবে।

    পাত্রী বিবাহের পূর্বে দেখার মধ্যে আর ও অনেক ফায়দা  নিহিত রয়েছে


    পাত্রী দেখার ইসলামিক নিয়ম

    পাত্র নিজে দেখবে এটাও উত্তম।নিজে না দেখলে বা দেখতে সম্ভব না হলে, কোন মহিলাকে পাঠিয়ে ও দেখার ব্যবস্তা করা যায়।

    পাত্রীর হাত ও চেহারা দেখার অনুমতি রয়েছে।

    অন্য অংগ দেখা যাবেনা। 

    যে পুরুষ যে নারীকে বিবাহ করতে চায় একমাত্র সে পুরুষ  ব্যতিত অন্য কোন গায়রে মুহরাম এর পক্ষে দেখা বৈধ নয়।এমনকি পাত্র এর পিতার ও দেখার অনুমতি নাই।আল্লাহ আমাদেরকে হক বুঝে হকের উপর আমল করার তাওফিক দান করুন।


                                   
    Previous Post Next Post
    আমাদের ফেসবুক পেইজে যুক্ত হতে ক্লিক করুন